• শনিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২২, ০৯:৪৫ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
গাংনীতে জমি রক্ষায় সংবাদ সম্মেলন গাংনীতে নাশকতা মামলায় বিএনপি নেতা জাহাঙ্গীর গ্রেফতার মেহেরপুর রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত কুষ্টিয়ায় বাড়ছে প্রতিবন্ধীর সংখ্যা একই পরিবারে ১৭ জন প্রতিবন্ধী মেহেরপুর জেলা পরিষদের রেস্ট হাউজের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন গাংনীর সাহারবাটি গ্রামের সাবেক মেম্বার রুহুল কুদ্দুসের দাফন সম্পন্ন কুষ্টিয়ায় ট্রাকের ধাক্কায় ঝরলো দুটি প্রাণ প্রতিবন্ধীরা সমাজের বোঝা নয়: জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন গাংনী প্রেসক্লাবের নবনির্বাচিত কমিটির শপথ অনুষ্ঠিত গাংনী উপজেলা নির্মান শ্রমিক ইউনিয়নের আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান

কুষ্টিয়ায় নিহত সাংবাদিক রুবেলকে গ্রেফতার করতে বাড়িতে পুলিশ

ইসমাইল হোসেন, কুষ্টিয়া / ৯০ Time View
Update : রবিবার, ২৩ অক্টোবর, ২০২২
কুষ্টিয়ায় নিহত সাংবাদিক রুবেলকে গ্রেফতার করতে বাড়িতে পুলিশ
কুষ্টিয়ায় নিহত সাংবাদিক রুবেলকে গ্রেফতার করতে বাড়িতে পুলিশ

কুষ্টিয়ার সাংবাদিক হাসিবুর রহমান রুবেলকে (৩১) পূর্বপরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়। এখনো পর্যন্ত হত্যাকাণ্ডের রহস্য উন্মোচন করতে পারেনি পুলিশ। উল্টো নিহত রুবেলকে গ্রেফতার করতে গতকাল তার বাড়িতে গিয়েছিল পুলিশ। এ ঘটনায় (২৩ অক্টোবর) তিব্র নিন্দা, প্রতিবাদ ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন রুবেলের পরিবার ও সাংবাদিক সমাজ।

জানাগেছে, শনিবার (২২ অক্টোবর) দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে কুষ্টিয়া পৌরসভার ৬ নম্বর ওয়ার্ডের হাউজিং এ ব্লক এলাকার এ/৩৯ নম্বর রুবেলের বাড়িতে যান মিলপাড়া ফাঁড়ির সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) আসাদুল ইসলাম।

রুবেলের মা ফিরোজা আক্তার দুঃখ প্রকাশ করে বলেন, গতকাল শনিবার দুপুরে পুলিশ আমার ছেলেকে গ্রেফতার করতে এসেছিল। তিন মাস ১৬ দিন আগে আমার ছেলের লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। পূর্বপরিকল্পিতভাবে আমার ছেলেকে হত্যা করা হয়েছিলো। এখনও পর্যন্ত ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের আইনের আওতায় আনতে পারেনি পুলিশ। উল্টো আমার ছেলেকে গ্রেফতার করতে এসেছিল পুলিশ। ব্যাপারটা খুবই দুঃখজনক।

সাংবাদিক রুবেল হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় মামলার বাদী ও রুবেলের চাচা মিজানুর রহমান মেজর বলেন, রুবেল হত্যাকাণ্ডের ঘটনা সাড়ে তিন মাস পেরিয়ে গেলেও এখনও পর্যন্ত হত্যার রহস্য উদঘাটন করতে পারেনি পুলিশ। তার ওপরে মৃত রুবেলের নামে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হয়েছে। তাকে গ্রেফতার করতে শনিবার দুপুরে এসআই আসাদ ও শফি রুবেলের বাড়িতে যায়। এটা খুবই দুঃখজনক ব্যাপার। এ ঘটনায় আমি চরম হতাশ। পুলিশকে রুবেলের মৃত্যু সনদ দেখানো হলে তারা চলে যায়।

বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন (বিএফইউজে) কুষ্টিয়ার সভাপতি হাজী রাশেদুল ইসলাম বিপ্লব বলেন, সাংবাদিক রুবেল হত্যাকাণ্ডের রহস্য এখনো উন্মোচন করতে পারেনি পুলিশ এবং উল্লেখযোগ্য আসামিও গ্রেফতার হয়নি। অথচ নিহত রুবেলের বাড়িতে গ্রেফতারি পরোয়ানা (ওয়ারেন্ট) নিয়ে তাকে গ্রেফতার করতে গেছে পুলিশ। এটি সাংবাদিকদের জন্য মানহানিকর ও লজ্জাজনক ঘটনা। এ ঘটনায় তিব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি। একইসঙ্গে সাংবাদিক রুবেল হত্যাকাণ্ডের ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাচ্ছি।

কুষ্টিয়া মডেল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দেলোয়ার হোসেন খান বলেন, একটি মামলায় রুবেলের নামে গ্রেফতারি পরোয়ানা হয়েছে। এজন্য তার বাড়িতে পুলিশ গিয়েছিল। এ বিষয়ে খোঁজ খবর নিয়ে জেনে একটু পরে আপনাকে জানাচ্ছি।

এ বিষয়ে এএসআই আসাদুল ইসলাম আসাদ বলেন, হাসিবুর রহমান রুবেলের নামে চেক সংক্রান্ত একটি মামলায় (এনআইডি এক্টের ১৩৮ ধারায়) ওয়ারেন্ট ইস্যু হয়েছে। আদালতের সিআর ৩১০/২২ নম্বরের ওয়ারেন্ট তার নামে ইস্যু হয়। এটি হাতে পাওয়ার পর রুবেলের বাসায় গিয়ে জানতে পারি তিনি মারা গেছেন। এরপর তার মৃত্যু সনদ নিয়ে আদালতে একটি প্রতিবেদন দেওয়া হয়েছে। আর কোনো সমস্যা নেই। তার বাড়ি আর যাওয়া লাগবে না।

প্রসঙ্গত; নিখোঁজের ৫ দিন পর গত ৭ জুলাই দুপুর দেড়টার দিকে কুষ্টিয়ার কুমারখালী উপজেলার কুমারখালী পৌরসভার ৮নম্বর ওয়ার্ডের তেবাড়িয়া গ্রামের গোলাম কিবরিয়া ব্রিজের (নির্মাণাধীন) নিচে গড়াই নদী থেকে হাসিবুর রহমান রুবেলের (৩১) অর্ধগলিত মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। পর দিন শুক্রবার (৮ জুলাই) ময়নাতদন্ত শেষে বেলা সাড়ে ১১টার দিকে পৌর গোরস্থানে জানাজা শেষে নিহত সাংবাদিক রুবেলের দাফন সম্পন্ন করা হয়।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category