• সোমবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ০৮:০৯ অপরাহ্ন

গরিব ও অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানো বিত্তবানদের নৈতিক দায়িত্ব: শিল্প প্রতিমন্ত্রী কামাল আহমেদ মজুমদার

বিবর্তন ডেস্ক / ১৩০ Time View
Update : মঙ্গলবার, ২৩ আগস্ট, ২০২২

শিল্প প্রতিমন্ত্রী বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব কামাল আহমেদ মজুমদার এমপি বলেছেন, বৈশ্বিক মহামারী করোনা ভাইরাসের ভয়াল থাবা এবং রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের বিরূপ প্রভাবে সমগ্র বিশ্বেই অর্থনৈতিক মন্দা চলমান রয়েছে। আমাদের দেশে সরকারের পক্ষ থেকে জনকল্যাণে সর্বাত্মক প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে। বিদ্যমান পরিস্থিতিতে গরিব ও অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে তাদেরকে সাধ্যমোতাবেক সাহায্য-সহযোগিতা করা বিত্তবানদের নৈতিক দায়িত্ব ও কর্তব্য। আজ (২৩ আগস্ট) মঙ্গলবার বিকালে রাজধানীর মিরপুরের ৬০ ফুট রোড এলাকায় মনিপুর উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজ মাঠে জাতীয় শোক দিবস-২০২২ উপলক্ষ্যে গরীব ও অসহায় মানুষের মাঝে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।

শিল্প প্রতিমন্ত্রী ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্টের কালরাতে নির্মম হত্যাকাণ্ডের শিকার সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী, স্বাধীন বাংলাদেশের মহান স্থপতি, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, তাঁর সহধর্মিনী মহিয়সী নারী বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন নেছা মুজিবসহ পরিবারের অন্যান্য সদস্যবৃন্দ এবং জাতীয় চার নেতা ও মহান মুক্তিযুদ্ধে জীবন উৎসর্গকারী সকলকে গভীর শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণ করেন এবং সকল শহীদের বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন। কামাল আহমেদ মজুমদার এমপি বলেন, একাত্তরের পরাজিত শত্রু বাংলার প্রকৃত ইতিহাসকে বিকৃত করার জন্য, বঙ্গবন্ধুর নামকে মুছে ফেলার জন্য অতীতের ন্যায় এখনও নানামুখী ষড়যন্ত্রে রয়েছে। যারা বাস্তবকে অস্বীকার করে কল্পিত কাহিনী ও পরিস্থিতি বানিয়ে দেশের সরলপ্রাণ মানুষকে বিভ্রান্ত ও বিপথগামী করে দেশের উন্নয়ন, অগ্রগতি ও শান্তির ধারাকে ব্যাহত করতে চায়, একাত্তরের চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে তাদের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন ছিল ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত উন্নত-সমৃদ্ধ এক বাংলাদেশ, সেই স্বপ্নই বাস্তবায়ন করছেন তাঁর সুযোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা। দেশরত্ন শেখ হাসিনার গতিশীল নেতৃত্বে সকলের সমিামলিত প্রচেষ্টায় করোনাসহ সকল বাধা-বিপত্তি উপেক্ষা করে ২০৪১ সালের মধ্যেই বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ে উঠবে, ইনশাআল্লাহ। শিল্প প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, মনিপুর উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজ এসএসসি ও এইচএসসিসহ অন্যান্য পাবলিক পরীক্ষায় গৌরবোজ্জ্বল ফলাফল অর্জনের পাশাপশি সার্বিক বিবেচনায় দেশের অন্যতম শ্রেষ্ঠ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। ঐতিহ্যবাহী এই প্রতিষ্ঠানটি ভবিষ্যতেও শ্রেষ্ঠত্বের মর্যাদা অক্ষুন্ন রাখবে, এটাই সবার প্রত্যাশা। প্রধান অতিথির বক্তৃতা শেষে কামাল আহমেদ মজুমদার এমপি ১৩ নম্বর ওয়ার্ডের চার শতাধিক গরীব ও অসহায় পরিবারের মাঝে নিজের পক্ষ থেকে ১০ কেজি চাউলসহ খাদ্যসামগ্রীর একটি করে প্যাকেট বিতরণ করেন। ১৩ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব শামসুল আলম শামসু’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে মনিপুর উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজের অধ্যক্ষ ফরহাদ হোসেন, হাজী আলী হোসেন উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি আলবেলী আফিফা রহমান, মিরপুর থানা আওয়ামী লীগের অন্যতম নেতা আলহাজ্ব আবুল কালাম আজাদসহ স্থানীয় আওয়ামী লীগ এবং এর অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের সর্বস্তরের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category